Latest News

Mobile Tips
Computer Tips

Education

Technology

Love

Usefull Post

Recent Posts

Saturday, 26 May 2018

বিশ্বকাপ এর যেকোন দলের জার্সিতে আপনার নাম ও নাম্বার লিখুন এক ক্লিকে…

⇐আসসালামু আলাইকুম⇒
সুপ্রিয় ভিজিটর সবাইকে স্বাগতম জানাচ্ছি এই ফানি পোষ্টে, আমি আগেই বলে নিচ্ছি এই পোষ্ট টি আপনার কোন কাজে আসবেনা এই পোষ্ট টি শুধু মজার জন্য দেওয়া! আপনার প্রিয় দলের যেকোন প্লেয়ার এর জার্সিতে আপনার নাম লিখবেন কিভাবে সেটা আজ আপনাদের জানাব। ফুটবল খেলা দেখেনা বা পছন্দ করেনা এমন লোক পাওয়া দুষ্কর আর সামনে যদি থাকে বিশ্বকাপ তাহলে তো আর কথাই নাই! তাহলে দেখুন কিভাবে লিখবেন প্রিয় দলের বা প্লেয়ার এর জার্সিতে আপনার নাম-
প্রথমে এই লিঙ্ক এ যান- http://bit.ly/2krYmHW
এবার দেখুন  ৩২টি দলের নাম ও দেশের পতাকা দেওা আছে, আপনি আপনার পছন্দের দলের নামে ক্লিক করুন এবার মূল পাতা আসবে।
এখানে একটি জার্সি দেওয়া আছে আপনি যা টাইপ করবেন ও তাতে চেঞ্জ করবেন তা এখানে শো করবে।এগুলোর কাজ শেষ করে ডান দিকে দেখুন একটি ডাওনলোড অপশন আছে তাতে ক্লিক করে ডাওনলোড করে নিন এবং শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে।
কাজটা খুব সহজ তাই আর কিচ্ছু বলছিনা আপনি নিজে করুন..
আর অবশই কমেন্টে জানান কে কোন দলের কত নাম্বার জার্সিতে কি নাম লিখলেন।

⇒বিদায়⇔আল্লাহ্‌ হাফেয⇐

 

Friday, 25 May 2018

‘আমাদের তরুণ বিজ্ঞানীরাই স্যাটেলাইট নিয়ন্ত্রণ করবে’

‘বাংলাদেশের প্রথম কৃত্রিম উপগ্রহ বঙ্গবন্ধু-১ নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে তার কক্ষপথে পৌঁছেছে। এর নিয়ন্ত্রণ নিতে গাজীপুর ও রাঙ্গামাটির বেতবুনিয়ায় স্থাপিত দুই গ্রাউন্ড স্টেশনে দেশের ৩০ জন তরুণ বিজ্ঞানী রয়েছেন সদাজাগ্রত ও প্রাণবন্ত। চুক্তি মোতাবেক তিন বছর বিদেশিদের তত্ত্বাবধানে থাকলেও স্যাটেলাইটটি আমাদের বিজ্ঞানীদের নিয়ন্ত্রণে আসতে খুব বেশি সময় লাগার কথা না।’  স্যাটেলাইটের প্রকল্প পরিচালক মো. মেসবাহউজ্জামান এসব কথা বলেছেন।
তিনি বলেন, ‘আমাদের তরুণ বিজ্ঞানীরা অনেক ফাস্ট। স্যাটেলাইটের নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ফ্রান্সের থ্যালেস অ্যালেনিয়া স্পেসের বিজ্ঞানীরা চুক্তি মোতাবেক তাদের তিন বছর প্রশিক্ষণ দেবেন। কিন্তু এই সময়ের আগেই আমাদের দেশের ৩০ জন তরুণ বিজ্ঞানী তারকা হয়ে যাবে বলে আমরা আশা করছি। তিন বছর লাগবে বলে মনে হচ্ছে না। আমাদের বিজ্ঞানীরাই নিয়ন্ত্রণ করবেন স্যাটেলাইট বঙ্গবন্ধু-১-এর সব দিক ও বিভাগ। ইতোমধ্যে তারা তাদের সক্ষমতার প্রমাণ দিয়েছেন। এর ফলে ধারণা করা যাচ্ছে দেশের দুই গ্রাউন্ড স্টেশনের নিয়ন্ত্রণে খুব বেশি দিন বিদেশিদের প্রয়োজন হবে না।
এ বিষয়ে ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, ‘দেশের ৩০ জন তরুণ বিজ্ঞানী কাছে ভবিষ্যতে আমাদের মহাকাশের অনেক দূর নিয়ে যাবে। এক বিশাল কর্মযজ্ঞের সূচনা হলো। একদিন মহাকাশ জয় করব আমরা। আমাদের তরুণদের দ্বারা এটি সম্ভব বলে আমি বিশ্বাস করি। এখানে ভিন্ন যুক্তির অবকাশ নেই।’
তিনি বলেন, ‘গ্রাউন্ড স্টেশনে দেশের ছেলে-মেয়েরা কাজ করছে। তারা সবাই যোগ্যতার পরিচয় দিয়ে যাচ্ছে।’ উল্লেখ্য, বিসিএসসিএলের অপারেশন ইউনিটে নিয়োগ পাওয়া ৩০ তরুণের মধ্যে ১৮ জন দুই ভাগে গাজীপুর ও রাঙ্গামাটির বেতবুনিয়ার গ্রাউন্ড স্টেশন থেকে পরিচালনা করবেন স্যাটেলাইট বঙ্গবন্ধু-১। বাকি ১২ জন থাকবেন গ্রাউন্ড স্টেশনের সিভিল ও ইঞ্জিনিয়ারিং সাইটে।
গত ১১ মে যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা থেকে মহাকাশের পথে উড়ে যায় বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১। এরপর দুটি ধাপে এর উৎক্ষেপণ প্রক্রিয়া শেষ হয়। এর মধ্যে উৎক্ষেপণ স্থান থেকে ৩৬ হাজার কিলোমিটার দূরে কক্ষপথে যাওয়ার পথে ৩৫ হাজার ৭০০ কিলোমিটারই পার হয় কয়েক মুহূর্তে। রকেটের স্টেজ-২ খুলে গেলে এটির গতি ধীর হয়ে যায়। কক্ষপথে চূড়ান্তরূপে অবস্থান নেওয়ার পর ৩৬ হাজার কিলোমিটার ওপর দিয়ে পৃথিবী প্রদক্ষিণ করবে স্যাটেলাইটটি।
পৃথিবীর মতো ২৪ ঘণ্টায় একবার সূর্য প্রদক্ষিণ করবে। ফলে পৃথিবী হতে স্যাটেলাইটটিকে স্থির মনে হবে। স্যাটেলাইট থেকে সেবা পেতে সব মিলে তিন মাসের মতো সময় লাগবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

Thursday, 24 May 2018

উদ্যোক্তা তৈরিতে পিকেএসএফকে সহায়তা দেবে বিশ্বব্যাংক

প্রকল্পটির মূল উদ্দেশ্য হলো বাংলাদেশের পরিবেশগতভাবে টেকসই ক্ষুদ্র উদ্যোগগুলোকে সহায়তা করা।

পল্লী কর্মসহায়ক ফাউন্ডেশনের (পিকেএসএফ) ‘সাসটেইনেবল এন্টারপ্রাইজ প্রজেক্ট (এসইপি)’ প্রকল্পের জন্য ১১০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার অর্থায়ন অনুমোদন করেছে বিশ্বব্যাংক। প্রকল্পটির মূল উদ্দেশ্য হলো বাংলাদেশের পরিবেশগতভাবে টেকসই ক্ষুদ্র উদ্যোগগুলোকে সহায়তা করা।
সম্প্রতি অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের এনইসি-২ সম্মেলন কক্ষে প্রকল্পটির ঋণচুক্তি এবং প্রকল্প চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে। সম্প্রতি পিকেএসএফ থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়েছে। চুক্তিতে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের সচিব কাজী শফিকুল আযম এবং বিশ্বব্যাংকের পক্ষে ব্যাংকটির ঢাকা অফিসের কান্ট্রি ডিরেক্টর চিমিয়াও ফান এবং পিকেএসএফের পক্ষে এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আব্দুল করিম স্বাক্ষর করেন।
পিকেএসএফের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আব্দুল করিম বলেন, এসইপি প্রকল্পটি বিশ্বব্যাংকের দ্রুততম সময়ে নেগোসিয়েশন সম্পন্ন প্রকল্পগুলোর মধ্যে একটি। তিনি স্বল্প সময়ের মধ্যে প্রকল্পের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করার জন্য ইআরডি, এফআইডি, বিশ্বব্যাংক এবং পিকেএসএফ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের ধন্যবাদ জানান। অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের সচিব কাজী শফিকুল আযম বলেন, ইআরডি এই প্রকল্পের বাস্তবায়নে সম্পূর্ণ সমর্থন প্রদান করবে। তিনি এই প্রকল্পের সার্বিক সাফল্য কামনা করেন।
চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে বিশ্বব্যাংক ঢাকা অফিসের কান্ট্রি ডিরেক্টর চিমিয়াও ফান বলেন, বেশিরভাগ দেশই ব্যবসা কার্যক্রম পরিচালনার ক্ষেত্রে পরিবেশ রক্ষার বিষয়টি মাথায় রাখে না, যা পরবর্তীতে ব্যাপক ক্ষতির কারণ হয়ে দাঁড়ায়। এই প্রকল্পটির মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে পিকেএসএফের অর্থায়নকৃত লক্ষ্যভুক্ত ক্ষুদ্র উদ্যোগগুলোতে পরিবেশগত দিক থেকে টেকসই পদ্ধতির চর্চা রপ্ত করতে সহায়তা করা।
প্রকল্পের মোট বাজেট ১৩০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। এর মধ্যে বিশ্বব্যাংক ১১০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার অর্থ সহায়তা প্রদান করবে এবং পিকেএসএফ ২০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার প্রদান করবে। প্রকল্পটি পিকেএসএফ মনোনীত সহযোগী সংগঠনগুলোর মাধ্যমে পাঁচ বছরে বাস্তবায়িত হবে। প্রকল্পটি ব্যবসাগুচ্ছ ভিত্তিক সাব-সেক্টর চিহ্নিতকরণের মাধ্যমে বাংলাদেশের ক্ষুদ্র উদ্যোগকে উৎসাহিত করবে। কৃষি ও উৎপাদন খাতের ৩০টি সাব-সেক্টরকে এই প্রকল্পের আওতায় বিবেচনা করা হবে। প্রাথমিকভাবে ৩০টি লিড জেলায় প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করা হবে যার প্রাপ্ত ফলাফল পর্যায়ক্রমে অন্যান্য জেলাতেও প্রতিফলন আকারে বিস্তার ঘটানো হবে।

 

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে চাকরির সুযোগ

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনে দুটি পদে ৯০ জনের কাজের সুযোগ তৈরি হয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি সম্প্রতি এ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। এ দুটি পদে নিয়োগ সম্পূর্ণ অস্থায়ী এবং দৈনিক মজুরি ভিত্তিতে হবে বলে বিজ্ঞপ্তি সূত্রে জানা গেছে।
বাংলাদেশের প্রকৃত নাগরিক এবং আগ্রহী হলে আবেদন করতে পারেন আপনিও। প্রতিষ্ঠানটি অদক্ষ শ্রমিক (মশক কর্মী) পদে ৫৪ জনকে নিয়োগ দেবে। প্রার্থীকে অষ্টম শ্রেণি পাস হলেই হবে। এ পদে শুধু পুরুষ নাগরিকরা আবেদন করতে পারবেন এবং সুঠাম দেহের অধিকারী হতে হবে।
অদক্ষ শ্রমিক পদে ৩৬ জনকে নিয়োগ দেয়া হবে। প্রার্থীকে অষ্টম শ্রেণি পাস হলেই হবে। চাকরিপ্রত্যাশীদের সর্বোচ্চ বয়স ৩২ বছর পর্যন্ত শিথিলযোগ্য।
আবেদনের প্রক্রিয়া : প্রার্থীকে নির্ধারিত ফরমে আবেদন করতে হবে। আবেদনপত্রে প্রার্থীর নাম, পিতা/স্বামীর নাম, মাতার নাম, স্থায়ী ঠিকানা, বর্তমান ঠিকানা, জাতীয়তা, ধর্ম, জন্ম তারিখ, বয়স, নিজ জেলার নাম, শিক্ষাগত যোগ্যতা ও অভিজ্ঞতা উল্লেখ করতে হবে। আবেদনপত্র ‘সচিব, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন, প্লট : ২৩-২৬, রোড : ৪৬, গুলশান-২, ঢাকা-১২১২’ বরাবর পাঠাতে হবে। আবেদনপত্র যে খামে পাঠানো হবে, তার উপর অবশ্যই পদের নাম লিখতে হবে। আবেদনের সময়সীমা ১০ জুন, ২০১৮।

Wednesday, 23 May 2018

২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে নটর ডেম কলেজে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির সংশোধিত তথ্য

২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে নটর ডেম কলেজে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য ওয়েবাসাইট ndc.innovizz.com 
অথবা নটরডেম কলেজের নির্দিষ্ট ওয়েবসাইট
www.notredamecollege-dhaka.com থেকে অনলাইনে আবেদন করতে হবে। ভর্তির আবেদন করার নিয়মাবলি কলেজের ওয়েবসাইটে দেয়া আছে। ভর্তি প্রক্রিয়ার খরচ বাবদ ২০০/- টাকা রকেট-এর মাধ্যমে দিতে হবে।

ভর্তি বিষয়ক বিস্তারিত দেখুন:

২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে নটর ডেম কলেজে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির বিস্তারিত তথ্য

Tuesday, 22 May 2018

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলাফল পুনঃমূল্যায়ন ২০১৮ এর ফলাফল প্রকাশ ৩১ মে

২০১৮ সালের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের ফলাফল ৩১ মে ২০১৮ প্রকাশ করা হবে। প্রকাশ হওয়ার পর সকল বোর্ড এর ফলাফল নিজ নিজ শিক্ষাবোর্ড এর ওয়েবসাইটের পাশাপাশি লেখাপড়া বিডি থেকেও জানা যাবে।
সকল বোর্ড এর ফলাফল একই দিনে প্রকাশ করা হলেও একই সময়ে প্রকাশ করা হয়না। তাই কোন বোর্ড এর ফলাফল প্রকাশ হওয়ার পর সেগুলো এখানে আপলোড করে দেওয়া হবে। ফলাফল আমাদের হাতে আসা মাত্র এখানে ডাউনলোড লিঙ্ক দিয়ে দেওয়া হবে।
উল্লেখ্য, গত ০৬ মে ২০১৮ তারিখ ২০১৮ সালের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হওয়ার পর দিন ০৭ মে থেকে যারা প্রত্যাশিত ফলাফল আসেনি তাদেরকে ১৩ মে পর্যন্ত টেলিটক মোবাইলের মাধ্যমে ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদনের সুযোগ দেওয়া হয়। এই পোস্টে উক্ত ফলাফল দেখার সকল পদ্ধতি সহ প্রকাশ হওয়ার পর উক্ত ফলাফল ও প্রকাশ করবো। তো চলুন কথা না বাড়িয়ে জেনে নেওয়া যাক বিস্তারিত.
যেভাবে ফলাফল ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের এর ফলাফল দেখা যাবেঃ ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের ফলাফল সাধারণত ২ টি পদ্ধতিতে দেখা যাবে। পদ্ধতিগুলো হলোঃ
১. এসএমএস পদ্ধতি
২. অনলাইন পদ্ধতি
এখন ২ টা পদ্ধতিতেই কিভাবে ফলাফল জানতে পারবেন বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক..
১. এসএমএস পদ্ধতিঃ এই পদ্ধতিতে ফলাফল জানার জন্য আপনাকে তেমন কিছুই করতে হবে না। ফলাফল প্রকাশের পর ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের আবেদন করার সময় প্রদত্ত আপনার ব্যক্তিগত মোবাইল নম্বরে (যে কোন অপারেটর এর) সরাসরি এসএমএস এর মাধ্যমে ফলাফল জানিয়ে দেওয়া হবে। তাই ফলাফল দেখার জন্য আপনার কোন ম্যাসেজ পাঠানোর প্রয়োজন নেই।
২. অনলাইন পদ্ধতিঃ এই পদ্ধতিতে আপনি যে বোর্ড থেকে পরীক্ষা দিয়েছিলেন ঐ বোর্ড এর অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে পিডিএফ আকারে শুধুমাত্র যাদের ফলাফলে পরিবর্তন হবে তাদের তালিকা প্রকাশ করা হবে।  উক্ত পিডিএফ ফাইলটি ডাউনলোড করে আপনার ফলাফলে কোন পরিবর্তন হয়েছে কিনা জেনে নিতে পারবেন। উল্লেখ্য, এই পদ্ধতিতেও যাদের ফলাফলে কোন পরিবর্তন হয়নি তাদের তালিকা প্রকাশ করা হয়না।
সহজে অনলাইনে ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের ফলাফল দেখবেন যেভাবেঃ ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের ফলাফল সাধারণত একই দিনে সকল বোর্ড ভিন্ন ভিন্ন সময়ে তাদের নিজস্ব ওয়েবসাইটে প্রকাশ করে থাকে। তাই সকল বোর্ড এর ফলাফল এক জায়গাতে পাওয়া যায়না। কিন্তু লেখাপড়াবিডি.কম এর এই পোস্ট থেকে সকল বোর্ড এর ফলাফল প্রকাশ হওয়ার সাথে সাথে আপলোড করে দেওয়া হবে। ফলে আপনারা খুব সহজেই এক জায়গাতে সকল বোর্ড এর পুনঃনিরীক্ষণের ফলাফল জানতে পারবেন। নিচের লিঙ্ক গুলোতে ফলাফল আপলোড করা হয়েছে। ফলাফল দেখতে আপনার বোর্ড এর লিঙ্ক এর উপর ক্লিক করে পিডিএফ ফাইলটি ডাউনলোড করুনঃ
এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফলাফল পুনঃনিরীক্ষণের ফলাফল ২০১৮ পাওয়া যাবে এখানে

পিডিএফ থেকে ফলাফল যেভাবে খুঁজে পাবেনঃ  উক্ত ডাউনলোড লিঙ্ক থেকে আপনার কাঙ্খিত বোর্ড এর ফলাফল ডাউনলোড করলে একটি পিডিএফ ফাইল পাবেন। এরপর পিডিএফ ফাইলটি Open করে কম্পিউটার এর কি বোর্ড এ CTRL+F প্রেস করবেন। এখন একটি সার্চ বক্স আসবে। ঐ বক্সে আপনার রোল নম্বর লিখে ENTER বাটন চাপলে আপনার ফলাফল হাজির হয়ে যাবে। যদি আপনার রোল নম্বর খুঁজে না পান সেক্ষেত্রে ধরে নিতে হবে আপনার ফলাফলে কোন পরিবর্তন হয়নি।

Entertainment
অনলাইনে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা তথ্য গুলোকেই সহজে জানবার সুবিধার জন্য একত্রিত করে "পাঁচগাছী ডিজিটাল সেন্টার" । এখানে সংগৃহিত তথ্য/লিংক গুলোর সত্ব (copyright) সম্পূর্ণভাবে সোর্স সাইটের এবং সোর্স সাইটের রেফারেন্স লিংক উদ্ধৃত আছে । এটা সার্চ ইঞ্জিন (search engine) অথবা ডিকশেনারী (Dictionary) নয়। এখান থেকে কোনো কথা উদ্ধৃতি (Reference) হিসেবে দেয়া যাবে না । এটি শুধুমাত্র কোনো বিষয় সম্পর্কে সহজে খোজে জানবার জন্য ভালো গাইড হিসেবে নেয়া যেতে পারে।